অনুবাদ:কল্যাণী রমা

বুধবার, ৮ অক্টোবর, ২০১৪

ক্লোদ্‌জ্‌

মূলঃ এ্যান সেক্সটন
অনুবাদঃ কল্যাণী রমা
~~~~~~~~~~~~~~~

রুশদেশের কেউ বলেছিল,
মরে যাওয়ার আগে একটা পরিষ্কার শার্ট পরে নিও।
প্লিজ যেন লালা না লেগে  থাকে।
ডিমের দাগ নয়, কোন রক্তের ছোপ নয়,
ঘাম নয়, বীর্য নয়।
ঈশ্বর, তুমি আমাকে ধবধবে পরিষ্কারমত চাও
তাই আমি তোমার ইচ্ছা পূরণের চেষ্টা করব।

যে হ্যাট পরে আমার বিয়ে হয়েছিল, সেটা চলবে?
শাদা, বড় বড়, নকল ফুল ছোট থোপায়।
পুরানো ফ্যাশনের, বিছানার কীটের মত কেতাদুরস্ত,
তবু অতীতস্মৃতিবিধুর কোন কিছুর মাঝে মরে যাওয়া ভালো।

আর হ্যাঁ, আমি আমার পেইন্টিং করবার 
শার্টটা সাথে নিয়ে নেব, কতবার ধোওয়া হয়েছে, 
যেসব হলুদ রান্নাঘর রঙ করেছি 
প্রত্যেকটার ফোঁটায় ফোঁটায় দাগধরা।
ঈশ্বর, যদি আমার সব রান্নাঘর নিয়ে হাজির হই
তুমি রাগ করবে না তো?
রান্নাঘরের পেটের ভিতর থাকে পরিবারের হাসি-হুল্লোড় আর স্যুপ।

ব্রা-র জন্য
(উল্লেখ করবার দরকার আছে কি?)
প্যাডেড কালো রঙেরটা খুলে ফেলতেই 
আমার প্রেমিক বলে উঠেছিল, ‘আরে, সব কোথায় গেল?’

আ্মি আমার নয়মাসের ম্যাটারনিটি স্কার্ট নিয়ে আসব
প্রেমের ফল ফোলা পেটের জানালা থেকে এক একটা বাচ্চা 
আপেলের মত ছিটকে পড়েছিল,
রেস্টুরেন্টে ওয়াটার ব্রেক করল,
তারপর ভীষণ হৈ চৈ ভরা এক বাড়ি – ওখানেই আমি মরে যেতে চাই।

আন্ডারপ্যান্টের জন্য সাদা সুতি বেছে নেব, ছেলেবেলার মত।
মা বলত ভালো মেয়েরা শুধু সাদা সুতির আন্ডার প্যান্ট পরে।
মা যদি এখন বেঁচে থাকত, পোস্ট-অফিসে ঠিক ‘ওয়ান্টেড’ সাইন 
ঝুলিয়ে দিত আমি যেসব কালো, লাল, নীল পড়েছি তার জন্য।
তবু ভালো মেয়ের মত মরে যেতে ভালোই লাগবে আমার
ক্লোরক্স আর ডাজের গন্ধ গায়ে মেখে
প্যান্টের সাইজ ষোল নিয়ে
আমি মরে যাব অসংখ্য প্রশ্ন হ’য়ে।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন